ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় খতমে নবুওয়ত মাদ্রাসায় হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশঃঃ কোন বাধা আসলে হরতালের ঘোষণা

0
37
ডিঃ ব্রাঃ ডেক্সঃ ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের কান্দিপাড়ায় আহমদিয়া সম্প্রদায়ের (কাদিয়ানিদের) অধীনস্থ মসজিদে আগামী জুম্মা নামাজ পড়বে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কওমি ছাত্র শিক্ষকরা। তখন মসজিদে কোন কাদিয়ানি থাকতে পারবেনা। এতে যদি কোন বাধা আসে তাহলে হরতাল করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জামিয়া ইউনুছিয়া (কওমি) মাদ্রাসার ছাত্ররা।
আজ বুধবার দুপুর সাড়ে ১২টায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেস ক্লাবের সামনে এক বিক্ষোভ সমাবেশে এই ঘোষণা দেওয়া হয়। এ সময় বক্তারা কাদিয়ানিদের অমুসলিম ঘোষণা করার দাবী জানান সরকারের কাছে। তারা বলেন, কাদিয়ানিদের আস্তানাকে মসজিদে রূপান্তর করে মুসলিমদের কাছে তা হস্তান্তর করতে হবে। দাবী না মানা পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ারও ঘোষণা দেন বিক্ষোভকারীরা। তারা আরো বলেন, কান্দিপাড়ার খতমে নবুয়ত মাদ্রাসার ছাত্রদের উপর যে হামলা হয়েছে তার বিচার করা হবে, রক্তের বদলা দেওয়া হবে। কোন মসজিদ কাদিয়ানিদের হতে পারেনা, কারণ তারা হলো অমুসলিম ও কাফের।
বিক্ষোভ সমাবেশে আগামী সোমবার জেলা প্রশাসকের কাছে স্বারকলিপি প্রদান ও আগামীকাল বৃহষ্পতিবার ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সকল ইমামদের নিয়ে জামিয়া ইসলামিয়া ইউনুছিয়া মাদ্রাসায় মিটিং করা হবে বলে জানানো হয়।
উল্লেখ্য, মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের কান্দিপাড়ায় কাদিয়ানি সম্প্রদায়ের সাথে কওমি ছাত্রদের সংঘর্ষ হয়। এ সময় মসজিদ ও বাড়ি-ঘরে হামলা চালানো হয়েছে। এতে বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। কওমি মাদ্রাসার ছাত্রদের পক্ষ থেকে দাবী করা হয়েছে, ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের কান্দিপাড়া এলাকায় কাদিয়ানী সম্প্রদায় কর্তৃক খতমে নবুওয়ত মাদ্রাসায় হামলা চালিয়ে শিক্ষার্থীদেরকে আহত ও দখলের চেষ্টা চালালে হাজার হাজার ইসলামপ্রিয় জনতা ও তালিবে ইলমরা প্রতিরোধ ও বিক্ষোভ করে। এরপরই সেখানে সংঘর্ষ শুরু হয়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে