সোমবার , ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ,৫ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সরাইলের বিশ্বরোড থেকে যাত্রী টানছে মাইক্রোবাস ভাড়া আকাশচুম্বি

 সরাইলের বিশ্বরোড থেকে যাত্রী টানছে মাইক্রোবাস ভাড়া আকাশচুম্বি

ডিঃব্রাঃ
লকডাউন চলাকালে শুধু অটোরিকশা চলার কথা থাকলেও তা মানছেন না সরাইল ও আশপাশের এলাকার চালক মালিকরা। যাত্রীদের চাহিদা বুঝে বাণিজ্যিক উদ্যেশ্যে মহাসড়কে চলছে প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাস। তারা টানছেন দূর দূরান্তের যাত্রী। মানছেন না স্বাস্থ্যবিধি। ভাড়াও আকাশচুম্বি। সরজমিনে দেখা যায়, ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের সরাইলের বিশ্বরোড মোড়ে দূরপাল্লার কোন যাত্রীবাহী কোচ বা বাস নেই।

সড়কের পাশে দাঁড়িয়ে আছে ৫-৭টি মাইক্রোবাস ও ৩-৪টি প্রাইভেটকার। পাশে দাঁড়িয়ে আছে অত্যাধুনিক ডিজাইনের ২-৩ টি মটরবাইক। কিছু যুবক ঘুরছে আর ডাকছে ‘ঢাকা’‘ঢাকা’। ছুটে যাচ্ছেন যাত্রীরা। ভাড়া হাকাচ্ছেন চালক এখানের ষ্ট্যান্ডের দায়িত্বে থাকা লোকদের সাথে। এয়ারপোর্ট ৬ শত টাকা। আর ঢাকার ভেতরে গেলে ৮ শত টাকা।

সড়কের অপর পাশে দাঁড়িয়ে আছেন অনেক নারী পুরূষ ও শিশু। তারা যাবেন সিলেট, মৌলভীবাজার, তেলিয়াপাড়া, শায়েস্তাগঞ্জ ও মাধবপুর। পণ্যবাহী পিকআপ ভ্যান ও ট্রাক আধা ঘন্টা বা ৪০ মিনিট পরপর আসছে। যাত্রীরা দৌঁড়ে যাচ্ছেন। দরজা খুলে যাত্রী ওঠাচ্ছেন। বসছেন চালকের সাথে ৩-৪ জন।

অনেকে বসছেন বাহিরে মালের চিপায়। ভাড়া মাধবপুর ৫শত টাকা। এরপর যেখানেই যাবেন সিলেট পর্যন্ত ৬-৭শত টাকা। গাড়ি গুলোর ভেতরে গিজাগিজি করেই বসছে যাত্রীরা। ২/১ জনের মুখে মাস্ক থাকলেও অধিকাংশ যাত্রীর মুখে নেই মাস্ক।

স্বাস্থ্যবিধির ধারে কাছেও নেই তারা। মটরবাইকের ভাড়া ১২ শত টাকা। আবার কিছু মটরবাইক আশুগঞ্জে ৫০-৬০ টাকায় যাত্রী টানছেন। ভৈরবের ভাড়া নিচ্ছেন ১শত টাকা। মটরবাইকে চালকসহ মোট ৩ জন আরোহন করছেন। ৩ জন চলার বিষয়টি সম্পূর্ণ বেআইনি। আর করোনাকালে নিষিদ্ধ। এরপর রয়েছে দূর্ঘটনার ঝুঁকি।

এরপর পরও চলছে যাত্রীরা। সড়কের আশেপাশে ঘুরাফেরা করছেন ৩-৪ জন হাইওয়ে থানার পুলিশ সদস্য। আজ বিশ্বরোড মোড় থেকে এভাবেই ঢাকা গিয়েছেন শতশত যাত্রী।

মাহবুব খান বাবুলঃ

digital

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *