শুক্রবার , ৫ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ,২০শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ইয়াবা মামলায় মা-ছেলের ১০ বছরের কারাদণ্ড

 ইয়াবা মামলায় মা-ছেলের ১০ বছরের কারাদণ্ড

ডিঃব্রাঃ ডেস্কঃ
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুর উপজেলায় প্রায় ৫০ হাজার পিছ ইয়াবা উদ্ধারের মামলায় মা-ছেলেকে ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। এছাড়াও আদেশে তাদের দুইজনকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ৬ মাসের কারাদণ্ড প্রদান করেন। বুধবার দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার অতিরিক্ত দায়রা জজ ১ম আদালতের হাকিম সাবেরা সুলতানা খানম এই দণ্ডাদেশ প্রদান করেন।মামলায় দণ্ড প্রাপ্তরা হলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার বাঞ্ছারামপুর উপজেলার মরিচাকান্দির কালা মিয়ার স্ত্রী ঝরনা বেগম (৫৪) ও তার ছেলে সুমন (২৮)। তবে রায় প্রদান কালে সুমন উপস্থিত থাকলেও মা ঝরনা বেগম পলাতক ছিলেন।আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১৭ সালের ৮ নভেম্বর জেলার বাঞ্ছারামপুর উপজেলার মরিচাকান্দিতে র‌্যাব-১৪ ভৈরব ক্যাম্পের সদস্যরা অভিযান চালিয়ে প্রায় ৫০ হাজার পিস ইয়াবাসহ ঝরনা বেগম ও তার ছেলে সুমনকে আটক করে।

পরে তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে আরেক অভিযানে মাদক পরিবহনের কাজে ব্যবহৃত দুইটি স্পীডবোর্ড আটক করা হয়। এ সময় পলাতক ফরিদ মিয়া ও সবুজ মিয়া নামের দুইজন সহ মা- ছেলের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করা হয়। উক্ত মামলায় সবুজ মিয়ার সংশ্লিষ্টতা না পাওয়ায় তাকে বাদ দিয়ে ৩ আসামীকে অভিযুক্ত করে। চার্টশিট প্রদান করা হয়। এরই মাঝে ঝরনা বেগম ও তার ছেলে সুমন জামিনে বের হয়। বুধবার রায় প্রদান কালে ছেলে সুমন মিয়া উপস্থিত হলেও মা ঝরনা বেগম পলাতক ছিলেন। অপর আসামি ফরিদ মিয়াকে সংশ্লিষ্টতা না পাওয়ায় বেকসুর খালাস প্রদান করে আদালত। এ মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী (এপিপি) অ্যাডভোকেট শরীফ হোসেন বলেন, ‘এই মামলার রাষ্ট্রপক্ষ মনে করে রায়ে ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। বিজ্ঞ বিচারক সঠিক ও যৌক্তিক ভাবে এই রায় প্রদান করেছেন’।

digital

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *